Sunday, February 5, 2023
spot_img
বাড়িউত্তরণ-২০২২দ্বাদশ বর্ষ, অষ্টম সংখ্যা, জুলাই-২০২২সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে মুখরিত পদ্মাপাড়

সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে মুখরিত পদ্মাপাড়

শাহ্ সোহাগ ফকির: পদ্মা সেতু উদ্বোধন। এক গৌরবগাথা ইতিহাস। গত ২৫ জুন দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের মানুষের বহুদিনের প্রত্যাশিত পদ্মা সেতুর উদ্বোধন করেন বঙ্গবন্ধু-কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। দেশীয় ও বিদেশিদের নানা ষড়যন্ত্র মোকাবিলা করে পদ্মা সেতুর উদ্বোধন করে ইতিহাস সৃষ্টি তথা জাতি ও দেশ-বিদেশের প্রশংসার জোয়ারে ভাসেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পদ্মা সেতুর উদ্বোধন ঘিরে আয়োজিত জনসভাস্থান মাদারীপুরের বাংলাবাজার ফেরিঘাট পদ্মার পাড় এলাকায় ছয় দিনব্যাপী মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। মাদারীপুর জেলা প্রশাসন ও বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির উদ্যোগে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। আনন্দঘন এ মুহূর্তকে স্মরণীয় করতে রাখতে ২৫ জুন সন্ধ্যায় বর্ণাঢ্য লেজার শো ও আতশবাজির পাশাপাশি গান পরিবেশনা করেন কণ্ঠশিল্পী মমতাজ বেগম, খুরশীদ আলম, প্রতীক হাসান, খাইরুল আনাম, প্রিয়াংকা গোপসহ একঝাঁক শিল্পী।
পদ্মা সেতু উদ্বোধনের দিন সন্ধ্যা থেকে প্রধানমন্ত্রীর জনসভা মঞ্চে ছয় দিনব্যাপী জমকালো সাংস্কৃতিক উৎসব উপভোগ করেন পদ্মাপাড় ও দক্ষিণাঞ্চলের মানুষ। মাদারীপুরের শিবচরের বাংলাবাজার মঞ্চে শিশু-কিশোরসহ নানা বয়সের মানুষের সাথে এ অনুষ্ঠানে যোগ দেন দেশের বিভিন্ন এলাকার সংসদ সদস্যরা। পদ্মা সেতু উদ্বোধনের জমকালো এ আয়োজনে অংশ নিতে পেরে নিজেদের ধন্য মনে করেন অনুষ্ঠানে অংশ নেওয়া দেশ বরেণ্য গুণী শিল্পীরা।
অনুষ্ঠানে যোগ দেন চিফ হুইপ, সংসদ সদস্য, জেলা প্রশাসনসহ সরকারের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তারা। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর জীবনী নিয়ে যাত্রাপালা, নাটকসহ বরেণ্য ও গুণী শিল্পীদের সংগীত পরিবেশনে খুশি সবাই। ৩০ জুন পর্যন্ত এই মঞ্চে সংগীত, নৃত্য, নাটক ও কবিতা আবৃত্তিসহ নানান আয়োজন উপভোগ করেন দর্শকরা।
বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির পরিবেশনায় অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় দিন ২৬ জুন সমবেত নৃত্যের পাশাপাশি গান পরিবেশন করেন কণ্ঠশিল্পী কনা, ইমরান ও ব্যান্ডদল স্পন্দন। তৃতীয় দিন ২৭ জুন সমবেত নৃত্যের পাশাপাশি গান পরিবেশন করেন কণ্ঠশিল্পী শফি ম-ল ও রাজিব। এদিন বঙ্গবন্ধুর জীবনীর ওপর মঞ্চায়ন করা হয় যাত্রাপালা ‘কারাগার জীবন’ ও ‘সংগ্রাম’। চতুর্থ দিন ২৮ জুন সমবেত নৃত্য, নাট্যদলের পরিবেশনা ও গান পরিবেশন করেন কণ্ঠশিল্পী ঐশী। পঞ্চম দিন ২৯ জুন গান পরিবেশন করেন কণ্ঠশিল্পী মেহেরীন ও সজিব। এদিন বাউল দলের পরিবেশনায় বাউল গান ও বিশেষ অ্যাক্রোব্যাটিক পরিবেশনা অনুষ্ঠিত হয়। ষষ্ঠ দিন ৩০ জুন ছিল স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের শিল্পীদের পরিবেশনা, নৃত্যাঞ্চলের পরিবেশনায় শামীম আরা নিপা ও শিবলী মুহাম্মদের পরিচালনায় সমবেত নৃত্য এবং গান পরিবেশন করেন জনপ্রিয় ব্যান্ডদল জলের গান। পদ্মা সেতুর উদ্বোধন উপলক্ষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে আসা দর্শনার্থীরা এই পদ্মার পাড়ে এর আগে এত সুন্দর জমকালো কোনো অনুষ্ঠান এবং এত বড় শিল্পীদের কখনও দেখেনি। সেতু উদ্বোধনের কল্যাণে তারা দেশের স্বনামধন্য শিল্পীদের কাছ থেকে দেখে ও তাদের মনোমুগ্ধকর পরিবেশনা উপভোগ করতে পেরে খুবই আনন্দিত।

আরও পড়ুন
spot_img

জনপ্রিয় সংবাদ

মন্তব্য