Friday, February 23, 2024
বাড়িউত্তরণ প্রতিবেদনদেশের আরও ৮০ লাখ মানুষ দারিদ্র্যসীমার বাইরে

দেশের আরও ৮০ লাখ মানুষ দারিদ্র্যসীমার বাইরে

উত্তরণ প্রতিবেদন: ২০১০ সাল থেকে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির গতি বাড়লেও দারিদ্র্য বিমোচনের গতি কমছে। এছাড়াও দেশের সব অঞ্চলে দারিদ্র্য কমার হার সমান নয়। অসমভাবে দারিদ্র্য কমছে বলে জানিয়েছে বিশ্বব্যাংক। সংস্থাটি বলছে, বাংলাদেশ দারিদ্র্য বিমোচন ও মানুষের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নে যে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি, এর বেশিরভাগই সম্ভব হয়েছে শ্রম আয় বৃদ্ধির কারণে। ২০১০-১৬ সময়ে ৮০ লাখ বাংলাদেশি দারিদ্র্য থেকে বেরিয়ে এসেছে। জোরালো অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি বাংলাদেশে দারিদ্র্য কমাচ্ছে। তবে দারিদ্র্য বিমোচনের ক্ষেত্রে সঠিক পথেই রয়েছে বাংলাদেশ জানান অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।
গত ৭ অক্টোবর রাজধানীর গুলশানের আমারি হোটেলে ‘বাংলাদেশ পোভার্টি অ্যাসেসমেন্ট’ নামে বিশ্বব্যাংক প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে দারিদ্র্যের চিত্র উঠে আসে। অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের উপস্থিতিতেই প্রতিবেদনটি প্রকাশ করা হয়। প্রতিবেদনে বলা হয়, দারিদ্র্য হার কমেছে অসমভাবে।
তবে দারিদ্র্য বিমোচনের ক্ষেত্রে সঠিক পথেই রয়েছে বাংলাদেশ জানান অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী তার বক্তব্যে বলেন, সরকারের প্রচেষ্টায় ২০৩০ সাল নাগাদ দারিদ্র্য থাকবে না। আমরা স্পষ্ট করে বলেছি, এখন স্বাভাবিক নিয়মেই প্রবৃদ্ধি ৮ শতাংশের ওপরে। এছাড়াও বাংলাদেশের দারিদ্র্য নিয়ে বিশ্বব্যাংক পুরাতন ডাটা দিয়েছে জানিয়ে অর্থমন্ত্রী বলেন, আপডেট ডাটা দিলে দারিদ্র্যের চিত্র আরও উন্নত হতে পারত। কেননা, দারিদ্র্য বিমোচনে নানা উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। কৃষি আধুনিক হচ্ছে। বাংলাদেশে ওয়ার্কিং পপুলেশনও শক্তিশালী।
তিনি বলেন, সরকার দেশ থেকে ক্ষুধা ও দারিদ্র্য দূর করতে রীতিমতো যুদ্ধ চালাচ্ছে। আগামী দুই থেকে তিন বছরের মধ্যে একটি উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি হবে। আমরা এতদিন অনেক বিনিয়োগ করেছি, বিশেষ করে অবকাঠামো খাতে।

পূর্ববর্তী নিবন্ধআঘাত­.
পরবর্তী নিবন্ধঅপরাধী অপরাধীই
আরও পড়ুন
spot_img

জনপ্রিয় সংবাদ

মন্তব্য